কিংবদন্তি অভিনেতা দিলীপ কুমারের জীবনাবসান

img

বিনোদন ডেস্ক:

ভারতের বলিউডের কিংবদন্তি অভিনেতা দিলীপ কুমার মারা গেছেন। বুধবার সকাল সাড়ে ৭টার দিকে তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন।

ভারতের এনডিটিভিসহ বেশ কয়েকটি গণমাধ্যম জানায়, ভারতের মুম্বাইয়েরে পিডি হিন্দুজা হাসপাতালে বুধবার সকাল সাড়ে ৭টার দিকে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়।

বর্ষীয়ান এ অভিনেতার মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৯৮ বছর। তার মৃত্যুতে ভারতের চলচ্চিত্র জগতে শোকের ছায়া নেমেছে।

শ্বাসকষ্টের সমস্যা হওয়ায় গতকাল মঙ্গলবার মুম্বাইয়ের হিন্দুজা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছিল দিলীপ কুমারকে। একটু একটু করে সুস্থও হয়ে উঠছিলেন। এমনকি দু-একদিনের মধ্যে বাড়ি ফিরে যাওয়ার কথা ছিল। তবে শেষ রক্ষা হলো না। 

দীর্ঘদিন ধরেই বয়সজনিত অসুস্থতায় ভুগছিলেন দিলীপ কুমার। সবশেষ মুম্বাইয়ের হিন্দুজা হাসপাতালের আইসিইউতে ভর্তি ছিলেন। তবে কয়েক দিন আগেই তার শারীরিক অবস্থা স্থিতিশীল বলে টুইটারে জানিয়েছিলেন স্ত্রী সায়রা বানু।

এর আগে, ৬ জুন একই হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন তিনি। তখনই জানা গিয়েছিল, করোনা নয়, দিলীপ কুমারের ফুসফুসে পানি জমেছে। এর ১২ দিন পর ছাড়া পেয়েছিলেন তিনি। কিন্তু নতুন করে শ্বাসকষ্ট শুরু হওয়ায় আবারো দিলীপ কুমারকে একই হাসপাতালে ভর্তি হতে হয়।

দিলীপ কুমারের আসল নাম ইউসুফ খান। ১৯২২ সালের ১১ ডিসেম্বর বর্তমান পাকিস্তানের পেশোয়ারে তাঁর জন্ম। ‘জোয়ার-ভাটা’, ‘আন’, ‘আজাদ’, ‘দেবদাস’, ‘আন্দাজ’, ‘মুঘল-ই-আজম’, ‘গঙ্গা-যমুনা’, ‘ক্রান্তি’, ‘কর্মা’, ‘শক্তি’, ‘সওদাগর’, ‘মশাল’সহ ৫০-এর বেশি বলিউডের ছবিতে তিনি কাজ করেছেন। তপন সিনহা পরিচালিত বাংলা ছবি ‘সাগিনা মাহাতো’তে দিলীপ কুমার অভিনয় করেছিলেন।

২০১৫ সালে ভারতের দ্বিতীয় সর্বোচ্চ বেসামরিক সম্মাননা ‘পদ্মবিভূষণ’পান দিলীপ কুমার। ১৯৯১ সালে দেশের তৃতীয় সর্বোচ্চ বেসামরিক সম্মাননা ‘পদ্মভূষণ’ও ১৯৯৪ সালে ‘দাদাসাহেব ফালকে’ পুরস্কারে ভূষিত হন এ অভিনেতা।