অন্ধ্রপ্রদেশে বন্যা-ভূমিধসে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৩০

img

আন্তর্জাতিক ডেস্ক:

ভারি বর্ষণের কারণে সৃষ্ট বন্যা ও ভূমিধসে ভারতের অন্ধ্রপ্রদেশে এ পর্যন্ত ৩০ জনের মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে। এখনও নিখোঁজ রয়েছেন অনেকে। দেশটির দক্ষিণের এই রাজ্যে টানা কয়েক দিনের বৃষ্টিতে সৃষ্ট বন্যায় ঘরছাড়া হয়েছেন কয়েক হাজার মানুষ।

চলতি সপ্তাহজুড়ে রাজ্যের আবহাওয়া পরিস্থিতি ভয়াবহ আকার ধারণ করে। বন্যার কারণে মহাসড়কগুলো পানিতে ডুবে যাওয়ায় বিভিন্ন গ্রামের সঙ্গে যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়ে। বিঘ্ন ঘটে বন্যাকবলিত এলাকাগুলোতে জরুরিভিত্তিতে ত্রাণ সরবরাহ কাজে। যদিও উদ্ধারকারী টিমের সদস্যরা অব্যাহত রেখেছেন তাদের উদ্ধার অভিযান।

দেশটির বিমান ও নৌবাহিনীর সদস্যরা বন্যাকবলিত গ্রাম ও শহরে খাবার ও বিশুদ্ধ পানি পৌঁছে দিচ্ছেন। নিম্নাঞ্চল থেকে এখনও অনেককে উদ্ধার করছেন তারা।

স্থানীয়দের অভিযোগ বৃষ্টির জন্য অন্ধ্রপ্রদেশেসহ তামিলনাড়ু এবং পুদুচেরিতেও বন্যার সতর্কতা জারি করেছিল কেন্দ্রীয় আবহাওয়া দপ্তর। কেন্দ্রীয় জল কমিশনও সতর্ক করেছিল বাঁধ নিয়ন্ত্রণকারী কর্তৃপক্ষকেও। তবে তাৎক্ষণিকভাবে পদক্ষেপ নেওয়া হয়নি।

এদিকে, কয়েক হাজার মানুষকে নিরাপদ আশ্রয়ে সরিয়ে আনা হয়েছে। বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে রাজ্যের তিরুভাল্লুর, চেঙ্গলপাটটু ও কাঞ্চিপুরমের সমস্ত স্কুল-কলেজ। একাধিক জেলায় জরুরি ভিত্তিতে বন্ধ রাখা হয়েছে অফিসও। এদিকে, চেন্নাই ও বেঙ্গালুরুতে এখনও অব্যাহত রয়েছে বৃষ্টিপাত।

বন্যা পরিস্থিতি নিয়ে অন্ধ্রপ্রদেশ রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী ওয়াই এস জগন্মোহন রেড্ডির সঙ্গে টেলিফোনে কথা বলেছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। সব রকম সহযোগিতার আশ্বাস দেন তিনি।

সূত্র: এনডিটিভি, বিবিসি