মাঙ্কিপক্সের উপসর্গ নিয়ে ভারতে এক যুবকের মৃত্যু

img

আন্তর্জাতিক প্রতিবেদক: 

মাঙ্কিপক্সের উপসর্গ নিয়ে ভারতের কেরালা রাজ্যে এক যুবকের মৃত্যু হয়েছে। রাজ্যের স্বাস্থ্যমন্ত্রী বীনা জর্জ মৃত্যুর বিষয়ে উচ্চ-পর্যায়ের তদন্ত শুরু করেছেন। যুবকটি ত্রিশুর জেলার চাভাক্কাদ কুরাঞ্জিউর বাসিন্দা। বিদেশে থাকাকালীন তার দেহে মাঙ্কিপক্স শনাক্ত হয় বলে জানিয়েছে ভারতীয় সংবাদ মাধ্যম এনডিটিভি।

বিনা জর্জ জানান, বিদেশে পরিচালিত পরীক্ষার ফলাফল ইতিবাচক ছিল। তিনি গুরুতর ক্লান্তি এবং এনসেফালাইটিসের কারণে ত্রিশুরে চিকিৎসা চেয়েছিলেন। তবে মাঙ্কিপক্স কোনও মারাত্মক রোগ নয়। চিকিৎসা নিতে বিলম্বের তদন্ত করা হবে।

মৃত্যু নিয়ে পুন্নায়ুরে সভা ডেকেছে স্বাস্থ্য বিভাগ।

ইতোমধ্যে নিহত যুবকের যোগাযোগ তালিকা ও রুট ম্যাপ তৈরি করা হয়েছে। যুবকের সঙ্গে যাদের যোগাযোগ ছিল তাদের আইসোলেশনে থাকার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।

ভারতে এখন পর্যন্ত পাঁচ জনের দেহে মাঙ্কিপক্স শনাক্ত হয়েছে। এর মধ্যে তিনটি কেরালার, একটি দিল্লির এবং অন্যটি অন্ধ্র প্রদেশের গুন্টুরের। অন্যান্য কয়েকটি দেশে সংক্রমণের সংখ্যা বেড়ে যাওয়ায় কেন্দ্রীয় সরকার পরবর্তীতে সতর্কতা অবলম্বন করেছে।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার (ডব্লিউএইচও) মতে ৭৮টি দেশ থেকে ১৮ হাজারের বেশি মাঙ্কিপক্সের কেস রিপোর্ট করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার ডব্লিউএইচও-র মহাপরিচালক ড. টেড্রোস বলেছেন, ‘দেশ, সম্প্রদায় এবং ব্যক্তিরা যদি নিজেদেরকে অবহিত করে, ঝুঁকিগুলোকে গুরুত্ব সহকারে নেয় এবং সংক্রমণ বন্ধ করতে ও দুর্বল গোষ্ঠীগুলোকে রক্ষা করার জন্য প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নেয় তবে মাঙ্কিপক্সের প্রাদুর্ভাব বন্ধ করা যেতে পারে।’