ইউক্রেনে রাশিয়ার ব্যাপক ক্ষেপণাস্ত্র হামলা

img

আন্তর্জাতিক প্রতিবেদক: 

রাশিয়া ব্যাপকমাত্রায় ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালিয়েছে ইউক্রেনের রাজধানী কিয়েভসহ বড় শহরগুলোতে । গুরুত্বপূর্ণ স্থাপনা লক্ষ্য করে ৫০টিরও বেশি ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপ করেছে রাশিয়া । 
 
 রাজধানী কিয়েভসহ সারাদেশে বিদ্যুৎ ও পানির সংকট দেখা দিয়েছে । কিয়েভের ৮০ ভাগ বাসিন্দা এখন পানির সংকটে আছে । প্রায় সাড়ে তিন লাখ অ্যাপার্টমেন্টে বিদ্যুৎহীন হয়ে পড়েছে । 
কিয়েভ পোস্টের খবরে বলা হয়, ইউক্রেনের কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, তারা আজ( সোমবার) সকালে ইউক্রেনের আকাশে অন্তত ৫০টি ক্ষেপণাস্ত্র শনাক্ত করেছেন । রাশিয়া তাদের অত্যাধুনিক টিইউ- ৯৫ ও টিইউ- ১৬০ বোমারু বিমান দিয়ে ৫০টির বেশি ক্রুজ ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপ করেছে । এর মধ্য থেকে কিয়েভের আকাশে অন্তত দুটি ক্ষেপণাস্ত্র ধ্বংস করেছে ইউক্রেনের আকাশ প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা । 
 
 রয়টার্সের খবরে বলা হয়, কিয়েভে কমপক্ষে দুটি বিস্ফোরণের খবরের তথ্য জানিয়েছেন শহরের মেয়র ভিতালি ক্লিচকো । তিনি বলেছেন, রুশ ক্ষেপণাস্ত্রের আঘাতে রাজধানীর আংশিক এলাকা বিদ্যুৎবিচ্ছিন্ন হয়ে পড়েছে । পাশাপাশি পানি সরবরাহ ব্যবস্থাও বাধাগ্রস্ত হচ্ছে বলে তিনি জানান । ক্লিচকো জানান, ক্ষেপণাস্ত্র হামলায় বিদ্যুৎ স্থাপনা ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ার কারণে প্রায় সাড়ে তিন লাখ অ্যাপার্টমেন্টে বিদ্যুৎ সরবরাহ বন্ধ রয়েছে । 
 রুশ হামলায় ইউক্রেনের বিভিন্ন শহরে বিদ্যুৎ ও পানির সংকট দেখা দিয়েছে বলে জানিয়েছেন ইউক্রেনের কর্মকর্তারা । উত্তর- পূর্বাঞ্চলীয় শহর খারকিভের গুরুত্বপূর্ণ স্থাপনায় হামলা হয়েছে বলে জানিয়েছে স্থানীয় কর্তৃপক্ষ । ক্রিমিয়ায় রুশ নৌবাহিনীর কৃষ্ণসাগর বহরে ইউক্রেন ড্রোন হামলা চালানোর একদিন পরই মস্কো এসব হামলা চালালো । 

 আজ মধ্য ইউক্রেনের ভিনিৎসিয়া অঞ্চলেও ক্ষেপণাস্ত্র হামলা হয়েছে বলে খবর পাওয়া গেছে । পাশাপাশি দক্ষিণ- পূর্বাঞ্চলের নিপ্রোপেত্রোভস্ক ও যাপোরিযিয়া এবং পশ্চিমে লাভিভ শহরে হামলা হয়েছে । 
 
 ইউক্রেনের রাষ্ট্রীয় টেলিভিশন চ্যানেলকে দেশটির বিমান বাহিনীর মুখপাত্র ইউরি ইহনাত বলেন, হামলা চালাতে নিজেদের কৌশলগত বোমারু বিমান ব্যবহার করেছে রাশিয়া ।