আন্তর্জাতিক ক্রিকেটকে বিদায় জানালেন হাশিম আমলা

img

ক্রীড়া ডেস্ক:

আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে দেশের জার্সি গায়ে আর মাঠে দেখা যাবে না দক্ষিণ আফ্রিকার ব্যাটসম্যান হাশিম আমলাকে। গতকাল বৃহস্পতিবার এক আবেগঘন বার্তায় আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের সব সংস্করণ থেকেই নিজের অবসরের ঘোষণা দেন তিনি। তবে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট ছাড়লেও আরও কিছুদিন ঘরোয়া ক্রিকেট চালিয়ে যাবেন ৩৬ বছর বয়সী এই ব্যাটসম্যান।

২০০৪ সালের নভেম্বর ভারতের বিপক্ষে টেস্ট দিয়ে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অভিষেক হয়েছিল আমলার। ২০০৮ সালে ওয়ানডে ও পরের বছর টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে অভিষেক হয় তার।

প্রায় ১৫ বছরের ক্যারিয়ারে আমলা সবশেষ দেশের হয়ে খেলেছেন কিছুদিন আগে শেষ হওয়া বিশ্বকাপে। শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে অপরাজিত ৮০ রান হয়ে থাকল দক্ষিণ আফ্রিকার হয়ে এই ডানহাতি ব্যাটসম্যানের সবশেষ ইনিংস। তবে শেষ বিশ্বকাপটা খুব একটা ভালো কাটেনি আমলার। সাত ইনিংস মিলিয়ে করেন ২০৩ রান।

ওয়ানডে ক্যারিয়ার বেশ সমৃদ্ধ আমলার। ২৭ সেঞ্চুরি ও ৩৯ ফিফটিতে ৪৯.৪৬ গড়ে করেছেন আট হাজার ১১৩ রান। টেস্টে ক্রিকেটেও দারুণ উজ্জ্বল আমলা। টেস্টে ২৮ সেঞ্চুরিতে ৪৬.৬৪ গড়ে করেছেন নয় হাজার ২৮২ রান। এই সংস্করণে দক্ষিণ আফ্রিকার হয়ে তার চেয়ে বেশি রান আছে কেবল জ্যাক ক্যালিসের।

নান্দনিক ব্যাটিংয়ের জন্য দুনিয়াজুড়ে নাম কুড়ানো আমলা আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে তার ১৫ বছরের পথচলা থামিয়েছেন কৃতজ্ঞচিত্তে। বিদায় বেলায় বাবা-মা, বন্ধু, স্বজন, সতীর্থ, ভক্ত কোচ সবাইকে ধন্যবাদ জানান তিনি।

অবসরের ঘোষণায় আমলা বলেন, ‘সবার প্রথমে, সব কৃতিত্ব ও মহিমা মহান আল্লাহর। তিনিই সর্বশক্তিমান। যিনি আমাকে দক্ষিণ আফ্রিকার হয়ে খেলার সুযোগ করে দিয়েছেন। এটা ছিল আনন্দ ও গৌরবে পরিপূর্ণ। চলার পথে আমি অনেক কিছু শিখেছি, অনেক বন্ধু তৈরি হয়েছে, আর সবচেয়ে বড় বিষয় হলো একে অন্যের সঙ্গে ভালোবাসা ভাগাভাগি করেছি।’

‘ভক্তদের বিশেষ ধন্যবাদ। যখন খারাপ সময় গিয়েছে তখন তারা সমর্থন দিয়েছে, আবার যখন সাফল্য এসেছে তখন উদযাপন করেছে। শিবঙ্গা (আমরা কৃতজ্ঞ) সাউথ আফ্রিকা!’

‘এবং অবশ্যই বড় ধন্যবাদ পাওনা ক্রিকেট বোর্ডের প্রেসিডেন্টের। ভুলব না প্রধান নির্বাহী থাবাঙ্গ মোরে ও তার প্রশাসনিক দলকে। সুযোগ দেওয়ার জন্য আমি কৃতজ্ঞ। ভালোবাসা ও শান্তি।’